মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারী ২০২০ ১১:৫২:২৮ এএম

"শ্রীমঙ্গলে জমে উঠেছে ঈদের বাজার"

সৌরভ আদিত্য | জেলার খবর | মেীলভীবাজার | শুক্রবার, ২৩ জুন ২০১৭ | ০২:৩৩:৪৮ পিএম

ঈদ মানে খুশি, ঈদ মানে আনন্দ, ঈদ মানে আনন্দে আত্বহারা। মুসলমানদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব ঈদুল ফিতরকে ঘিরে ধনী, গরিব সবার পরিবারের সকলের জন্য পোশাক চাই ই চাই। সকলে ছুটছে সকল বয়সী মানুষের পোশাক কেনার জন্য। এরই মাঝে ব্যাপক প্রস্তুতি, থাকে নানা আয়োজনের পরিকল্পনা। আর থাকে বাহারি খাবারের পাশাপাশি এদিন বিশেষ গুরুত্ব পায় নতুন পোশাক। নতুন পোশাকই যেন ঈদের পূর্ণতা।

শ্রীমঙ্গল শহরের বিভিন্ন শপিংমহল ঘুরে ও বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, গত কয়েক দিন ধরে টানা বৃষ্টির কারনে বিক্রি তেমন ভালো ছিল না । তবে ঈদ যতো এগিয়ে আসছে, জমে উঠছে ঈদের বাজার।

বিভিন্ন পোশাকের দোকানে ক্রেতাদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠেছে ফুটপাত থেকে শুরু করে বড় বড় শপিংমলগুলো। বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায় , এবার ঈদে দেশি পোশাকের চেয়ে বিদেশি পোশাক পছন্দের তালিকায় ক্রেতাদের ঝোঁক বেশি।

এবারের ঈদে তরুণীদের জন্য রয়েছে- বাহুবলি, মেহেরজান, লেহেঙ্গা, থ্রিপিস, সিনথেটিক ফ্রক।

শ্রীমঙ্গল শহরের ষ্টেশন রোডের শাপলা সুপার মার্কেট, ফসিউর রহমান মার্কেট, নিউমার্কেট, মিদাদ শপিং সিটি, সোনালী মার্কেট, সাইফুর রহমান পৌর সুপার মার্কেট, মিতালী ম্যানশন, খাতুন ম্যানশন, ইত্যাদি মার্কেট ঘুরে ক্রেতাদের ভীড় লক্ষ করা যায়।

ক্রেতাদের কয়েকজন জানান, মার্কেট জুড়ে দেশি-বিদেশি নানান ডিজাইনের পোশাক থাকায় পছন্দ করে কেনা যাচ্ছে। এরমধ্যে বিদেশি পোশাকের প্রাধান্য বেশি। আবার অনেকে মানসম্মত পোশাক পাচ্ছেন না বলেও অভিযোগ করেন।

দেশি বুটিকস, সুতি কাপড়কে বেছে নিচ্ছেন। তবে দেশি বুটিকসের কাপড়ও কিনছেন অনেকে। নিড ফ্যাশনের মালিক মোহন রায় জানান, তরুনীদের পাশাপাশি তরুনদের কাছে জেন্টসের, শার্ট,প্যান্ট, পাঞ্জাবী, পায়জামা খুব ভালো চলছে আজ বিক্রি ভালো হচ্ছে বলে জানান।

সোনালী মার্কেটের এম,বিতে আসা এক তরুণী রুমা বেগম জানান, আমি আমার বড় আপু ও ভাগ্নিকে নিয়ে আসছি ঈদের কাপড় কিনতে, যে দোকানে যাই না কেন শুধু ভারতীয় থ্রি-পিস,ভারতীয় বেনারশি শাড়ি মার্কেট দখল করে আছে ।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন